রবিবার, ১৪ই জুলাই, ২০২৪

সর্বশেষ

গণতন্ত্র ও ভোটাধিকার পুনরুদ্ধার আন্দোলন চূড়ান্ত পর্যায়ে-শামীম

বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীম বলেছেন, গণতন্ত্র ও ভোটাধিকার পুনরুদ্ধার আন্দোলন চূড়ান্ত পর্যায়ে উপনীত হয়েছে। এক দফা ঘোষণা করা হয়েছে। যেকোনো মূল্যে এক দফার আন্দোলন সফল করতে হবে। আগামী ১৯ জুলাই চট্টগ্রামের পদযাত্রায় সকল স্তরের নেতাকর্মীদেরকে অংশ নিতে হবে। এই পদযাত্রার মধ্য দিয়ে গণবিরোধী সরকারের পতন ঘণ্টা বাজতে শুরু করবে। এক দফার আন্দোলনে সকল কর্মসূচি সফল করতে প্রতি মুহূর্তে প্রস্তুত থাকতে হবে।

তিনি শেখ হাসিনার পদত্যাগসহ নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকার পুনঃপ্রতিষ্ঠার এক দফা দাবিতে আগামী বুধবার চট্টগ্রামে পদযাত্রা কর্মসূচি সফল করার আহ্বান জানান।

তিনি সোমবার (১৭ জুলাই) বিকালে দোস্ত বিল্ডিংস্থ দলীয় কার্যালয়ে আগামী ১৯ জুলাই বুধবার চট্টগ্রাম মহানগর, উত্তর ও দক্ষিণ জেলা বিএনপির কেন্দ্র ঘোষিত পদযাত্রা কর্মসূচি সফল করার লক্ষে দক্ষিণ জেলা বিএনপির প্রস্ততি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

শামীম বলেন,দেশে একটা গণতান্ত্রিক নির্বাচন হওয়ার সুযোগ, জনগণের ভোট দেওয়ার অধিকার, সাংবাদিকদের লেখার অধিকার কোথাও নেই। গণতন্ত্র আজ নির্বাসনে। বিচার ব্যবস্থাও ধ্বংস করেছে আওয়ামীলীগ। আওয়ামী এই দুঃশাস‌ন থে‌কে মু‌ক্তি পে‌তে বিএনপি একদফার আন্দোলন ঘোষণা করেছে। জনগণের গণতান্ত্রিক অধিকার ফিরে পাওয়ার এই আন্দোলনে সবাইকে জেগে উঠতে হবে। একদফার আন্দোলনের মধ্য দিয়ে সরকারকে সরে যেতে হবে। নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকার ছাড়া আওয়ামী লীগের অধীনে এই দেশে কোনো নির্বাচন হতে দেওয়া হবে না। এই স্বৈরাচার সরকারের পতন না হওয়া পর্যন্ত রাজপথেই থাকবো। ভয় ত্রাস সৃষ্টি করে নির্বাচনী বৈতরণি পার হওয়ার চেষ্টা জনগণ এবার রুখে দেবে।

চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহবায়ক আবু সুফিয়ানের সভাপতিত্বে ও সি. যুগ্ম আহবায়ক এনামুল হক এনামের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় উপস্থিত ছিলেন দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য মোশাররফ হোসেন, আবদুল গাফ্ফার চৌধুরী, বদরুল খায়ের চৌধুরী, এস এম মামুন মিয়া, জহিরুল ইসলাম চৌধুরী আলমগীর, মোস্তাফিজুর রহমান, আবু মো. নিপার, খোরশেদ আলম, মফজল আহমদ চৌধুরী, ভিপি মোজাম্মেল হক, মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী জাহেদ, আমিনুর রহমান চৌধুরী, হামিদুল হক মান্নান চেয়ারম্যান, হাজী মো. রফিক, নুরুল কবির, মঈনুল আলম ছোটন, শফিকুল ইসলাম শফিক, জসীম উদ্দীন, জেলা যুবদলের সভাপতি মোহাম্মদ শাহজাহান, বাঁশখালী উপজেলা বিএনপির সভাপতি মো. লোকমান মাষ্টার, সাধারণ সম্পাদক রেজাউল হক চৌধুরী, পটিয়া পৌরসভা বিএনপির সদস্য সচিব গাজী আবু তাহের, সাতকানিয়া উপজেলা বিএনপির সদস্য সচিব গোলাম রসুল মোস্তাক, বিএনপি নেতা হাসান চৌধুরী, আবুল কালাম আবু, মিশকাতুল ইসলাম চৌধুরী পাপ্পা, জাহাঙ্গীর আলম, হারুনুর রশীদ চৌধুরী, তৌহিদুল আলম তৌহিদ, শফিকুল ইসলাম রাহী, মো. মহসিন চেয়ারম্যান, জেলা যুবদলের সি. সহ সভাপতি শাহজাহান চৌধুরী, সি. যুগ্ম সম্পাদক মোজাম্মেল হক, যুগ্ম সম্পাদক আবুল হোসেন বাবুল, হামিদুর রহমান পিয়ারু, জেলা ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ মহসিন, ওলামা দলের দলের সদস্য সচিব হাফেজ মৌলানা জাবের হোসাইন, স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা সেলিম চৌধুরী, পটিয়া উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক ওবায়দুল হক রিকু প্রমূখ।

আরও পড়ুন