শুক্রবার, ১২ই জুলাই, ২০২৪

সর্বশেষ

নারী সহকারীর সঙ্গে লিভ ইনে রেখা!

বিনোদন ডেস্ক

আর দুবছর পর ৭০ বছরে পা দিবেন আশির দশকের বলিউড জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা রেখা। ছবির সংখ্যা কমে গেলেও এখনও তার সৌন্দর্যে মুগ্ধ দর্শক। তবে ‘চিরসবুজ’ রেখার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে বিতর্কও কম হয়নি। বিশেষত অভিনেতা অমিতাভ বচ্চনের সঙ্গে তার সম্পর্ককে ঘিরে হয়েছিল বিপুল সমালোচনা।

অনেকের ধারণা বিগ-বির বিচ্ছেদ লালন করতেই আজও অবিবাহিত রেখা। তবে এবার বেরিয়ে এসেছে নতুন এক তথ্য। নিজের ব্যক্তিগত নারী সহকারীর সঙ্গে বহুবছর ধরে লিভ ইন করছেন রেখা।

লেখক ইয়াসের উসমানের লেখা ‘রেখা দ্য আনটোল্ড স্টোরি’ বইটিতে উঠে এসেছে নায়িকার জীবনের এই গোপন তথ্যগুলো। লেখকের দাবি, অনেক বছর ধরে রেখা তার ব্যক্তিগত সহকারী ফারজানার সঙ্গে সম্পর্কে রয়েছেন। ফারজানা বহু বছর ধরে রয়েছেন অভিনেত্রীর সঙ্গে। প্রতি মুহূর্তে তাকে রেখার পাশে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। এক কথায় বলা যেতে পারে ফারজানা হলেন রেখার ছায়াসঙ্গী।

ইয়াসের উসমানের বইয়ে উঠে আসা তথ্যে অবাক অনেকেই। বইতে লেখা রয়েছে, রেখার শোয়ার ঘরে ফারজানা ছাড়া আর কারও ঢোকার অনুমতি নেই। ফারজানার অনুমতি ছাড়া রেখার আশেপাশে কেউ-ই ঘেঁষতে পারে না। অভিনেত্রীর বাড়ির খুঁটিনাটি থেকে তার পেশাদার জীবনের প্রতিটি সিদ্ধান্ত নেন ফারজানাই।

রেখার জীবনীমূলক গ্রন্থটিতে লেখক আরও লিখেছেন, লম্বা সময় ধরে ফারজানার ওপর শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্ভরশীল রেখা। এ সম্পর্কে রেখা নারী এবং ফারজানা পুরুষের ভূমিকা পালন করেন।

বইটিতে আরও দাবি করা হয়েছে যে, ফারজানার সঙ্গে এই সম্পর্কের জন্যেই স্বামী মুকেশ অগরওয়াল আত্মহত্যা করেন। মুকেশ অগরওয়াল একজন ব্যবসায়ী ছিলেন। তার মৃত্যুর জন্যে কেউ দায়ি নয়- চিরকুট লিখে ১৯৯০ সালে গলায় ফাঁস দেন তিনি। এ সময় রেখা লন্ডনে ছিলেন।

এদিকে বইটি প্রকাশের পরপরই তোলপাড় শুরু হয়ে গেছে বি-টাউনে। রেখা সম্পর্কে এমন কথা পড়তে হবে- স্বপ্নেও ভাবেননি পাঠকেরা। তবে অভিনেত্রী এখনও কোনো মন্তব্য করেননি এ বিষয়ে। এতে আরও দ্বিধায় পড়েছে তার অনুরাগীরা। সূত্র: আনন্দবাজার

আরও পড়ুন