মঙ্গলবার, ৫ই মার্চ, ২০২৪

সর্বশেষ

টানা চারবার বিজয়ী হয়ে সরকার গঠন করতে যাচ্ছে আওয়ামী লীগ

নবম, দশম, একাদশ এবং সর্বশেষ দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন মিলিয়ে টানা চারবার বিজয়ী হয়ে সরকার গঠন করতে যাচ্ছে আওয়ামী লীগ। কোনো দলের টানা চার মেয়াদে জয় দেশের ইতিহাসে এক নতুন মাইলফলক। কয়েকটি আসনে গোলযোগ আর অনিয়মের অভিযোগ থাকলেও সার্বিক অর্থে গতকাল রবিবার শান্তিপূর্ণভাবেই সম্পন্ন হয়েছে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ।

বিএনপি এবং এর সমমনা ১৬টি দলের ভোট বর্জনের পাশাপাশি হরতাল ডাকার মধ্যেই গতকাল সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত দেশের ২৯৯টি সংসদীয় আসনে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। গতকাল রবিবার রাতে বেসরকারি ফলাফল অনুযায়ী, আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের ২২৪ জন, জাতীয় পার্টি লাঙ্গলের ১১ জন, কল্যাণ পার্টির একজন ও স্বতন্ত্র ৬২ জন জয়লাভ করেন।

এসব স্বতন্ত্র প্রার্থী নৌকাপ্রার্থীর বিপক্ষে ভোটের লড়াইয়ে নামলেও প্রায় প্রত্যেকেই আওয়ামী ঘরানার। শুধু তা-ই নয়, তাদের অনেকেই দলটির পদধারী নেতা।

ইসি জানিয়েছে, সারাদেশে ভোট পড়ার গড় হার ৪০ শতাংশ। ভোট শেষে সার্বিক পরিবেশ নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেছেন, গুরুতর সহিংসতার কোনো ঘটনা ঘটেনি, নির্বাচন শান্তিপূর্ণ ছিল।

নির্বাচন শান্তিপূর্ণ, অবাধ ও সুষ্ঠু হয়েছে বলে মন্তব্য করেছে মার্কিন পর্যবেক্ষক দল। ভোটগ্রহণ পরিদর্শন শেষে হোটেল সোনারগাঁয়ে সাংবাদিকদের সাবেক মার্কিন কংগ্রেসম্যান জিম বেটস বলেন, ‘আমি যেটি দেখেছি সেটি হচ্ছে- নির্বাচন শান্তিপূর্ণ, অবাধ ও সুষ্ঠু হয়েছে।’

পর্তুগাল থেকে আসা নির্বাচন পর্যবেক্ষক পাওলো কাসাকা গতকাল বলেন, ভোটকেন্দ্র ঘুরে ও বিভিন্ন মানুষের সঙ্গে কথা বলে মনে হয়েছে- সব কিছু ঠিক আছে। পুরুষদের চেয়ে নারীরা ভোটে বেশি আগ্রহী। কেবল ভোটার উপস্থিতি অনেক কম। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমরা শুনেছি ভোটকে কেন্দ্র করে অনেক সহিংসতা হবে। বাস্তবে সে রকম কিছু এখনো চোখে পড়েনি।

আরও পড়ুন